উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮

আমার লেখা উইন্ডোজ ২০০০ সার্ভার এডমিনিস্ট্রেশন গা্ইড বইটি অনেক দিন যাবৎ বাজারে নেই। সেটির সংস্করণ শেষ হয়ে যাওয়ার পর প্রকাশক মহোদয় নিরন্তর তাগাদা দিয়ে চলেছেন সেটির পরবর্তী সংস্করণ করে দেয়ার জন্য। সেটি করা সম্ভব হয়ে ওঠেনি আমারই জন্য, নিরন্তর ব্যস্ততার কারণে।

ইতোমধ্যে মাইক্রোসফট উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৩ রিলিজ হয়েছে, এবং তার পরে সর্বশেষ সার্ভার ভার্সন উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এসেছে। উইন্ডোজ ২০০০ সার্ভার থেকে উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এর পার্থক্য অনেক বেশি বিধায় আগের বইকে সংশোধন পরিমার্জন করলেই হতো না। আবার উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৩ ও উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এর মধ্যেও বিস্তর ফারাক। তাই শুধু উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এর উপরে নূতন লেখার সিদ্ধান্ত নেই। কিন্তু উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এর ফিচারসমূহ এতো ব্যাপক যে কোনটি ছেড়ে কোনটি এ পুস্তকে প্রাধান্য পাবে তা নির্ণয় করা অনেকক্ষেত্রেই কঠিন হয়ে পড়েছে। অবশেষে পুস্তকের আকার ও বিভিন্ন বিষয়ের গুরুত্ব বিবেচনা করে এ পুস্তকে এমনসব বিষয় সন্নিবেশ করা হয়েছে যা জেনে পাঠক উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ ব্যবহার করতে শিখবে।

উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ এর আরো অগ্রসর অনেক বিষয় রয়েছে, যেসব একটিভ ডিরেক্টরি পরিকল্পনা ও বাস্তবায়ন, নেটওয়ার্ক ইনফ্রাস্ট্রাকচার নির্মাণ, অগ্রসর নিরাপত্তা বৈশিষ্ট্যসমূহ, সার্ভার ভার্চুয়ালাইজেশন, ইত্যাদি এখানে আলোচনা করা হয় নি। এ পুস্তক পাঠ করে একবার উইন্ডোজ সার্ভার ২০০৮ ব্যবহার করতে শিখলে সেসব বিষয়ও কিছুদিনের মধ্যই বুঝে উঠতে পারবেন বলে আশা করছি।

%d bloggers like this: