মাস্টারিং জুমলা সাইট বিল্ডিং

১৯৯৯ সালে আমার প্রথম বই ওয়েব পাবলিশিং প্রকাশিত হয়েছিল। হাইপারটেক্সট মার্কআপ ল্যাঙ্গুয়েজ, ক্যাসকেডিং স্টাই শীট, জাভাস্ক্রিপ্ট ইত্যাদির সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার উদ্দেশ্যে সেই বই লিখেছিলাম। অনেকে সেটি পড়ে ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট শিখেছেন। তখনকার দিনে সেটিই ছিল ওয়েবে কিছু প্রকাশ করার পদ্ধতি। কিন্তু আজকের দিনে কাউকে যদি বলা হয় বড় কোনো কোম্পানির সাইট ডিজাইন করতে- তাহলে, আমি নিশ্চিত, সে কেবল এইচটিএমএল ব্যবহার করে সেই সাইট তৈরি করতে যাবে না। কারণ এখনকার সাইট তৈরির প্রযুক্তিতে এসেছে বৈপ্লবিক পরিবর্তন। কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বা সিএমএস তার অন্যতম। আর এই কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের অন্যতম হলো জুমলা!

কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম হিসেবে জুমলা ব্যাপক জনপ্রিয়। এটি দিয়ে প্রায় সব ধরনের সাইট তৈরি করা যায়। এটি ওপেন সোর্স এবং ফ্রি। তাই ব্যয়সাশ্রয়ী, এবং কার্যকর। বাংলাদেশেও জুমলা ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হচ্ছে।

জুমলা বিষয়ে এই পুস্তক মূলত জুমলা’র প্রারম্ভিক ব্যবহারকারীদের জন্য। কম্পিউটার ব্যবহার করতে জানে এমন কেউ এই পুস্তক পাঠ করে জুমলা দিয়ে সহজেই তার প্রয়োজনমতো ওয়েব সাইট তৈরি করতে সক্ষম হবেন। পুরো সাইট তৈরির বিভিন্ন বিষয়, যেমন জুমলা ইনস্টলেশন, কনফিগারেশন, কনটেন্ট ব্যবস্থাপনা, মড্যুল ও প্লাগইন ব্যবস্থাপনা, ইত্যাদি আলোচনা করা হয়েছে পুস্তকের প্রথমেই। এরপর টেমপ্লেট ব্যবস্থাপনা ও বহুভাষী সাইট তৈরির পদ্ধতি দেখানো হয়েছে। বইয়ের পরের অংশে রয়েছে- জুমলা পরিবর্ধন। বিভিন্ন এক্সটেনশন ব্যবহার করে জুমলা সাইটে কীভাবে বিভিন্ন ফিচার যোগ করা যায় তা দেখানো হয়েছে বাকি অধ্যায়গুলোতে। এভাবে ধাপে ধাপে ওয়েব সাইট তৈরির বিভিন্ন বিষয় বর্ণনা করা হয়েছে- যা অনুসরণ করে পাঠক ওয়েব সাইট তৈরির বিভিন্ন কৌশল সহজেই রপ্ত করতে পারবেন।

%d bloggers like this: